প্রাথমিকের এডমিট কার্ড প্রকাশ, পরীক্ষায় মানতে হবে ২৩ নির্দেশনা

প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ ২০২২ পরীক্ষার ২য় ধাপের এডমিট কার্ড প্রকাশ করা হয়েছে। প্রাইমারি নিয়োগের লিখিত পরীক্ষায় প্রার্থীদের মানতে হবে ২৩ নির্দেশনা।

প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ ২০২২ পরীক্ষার এডমিট কার্ড প্রকাশ, পরীক্ষায় প্রার্থীদের মানতে হবে ২৩ নির্দেশনা

২০২২ সালের ২০ মে অনুষ্ঠিত ২য় পর্যায়ের ৩০টি জেলার (আংশিক/সম্পূর্ণ) প্রাথমিকের নিয়োগ পরীক্ষার এডমিট কার্ড প্রকাশ করা হয়েছে।

১৪ মে ২০২২ খ্রি. তারিখ থেকে প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষার প্রবেশপত্র প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের নিয়োগ ওয়েবসাইট থেকে সংগ্রহ করা যাচ্ছে।

প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষার সময় প্রার্থীদের অনুসরণীয় ২৩টি নির্দেশনা দিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর। এইসব নির্দেশনা মেনে প্রার্থীদের লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহন করতে হবে।

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার প্রার্থীরা অনলাইনে প্রবেশপত্র সংগ্রহ করতে পারবেন। প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের ওয়েবসাইট থেকে নিয়োগ পরীক্ষার প্রবেশপত্র সংগ্রহ করা যাবে।

প্রাথমিকের নিয়োগ পরীক্ষার এডমিট কার্ড ডাউনলোডের ঠিকানা:

http://admit1.dpe.gov.bd:8086/att/applicant/downloadByUP

প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষার নির্দেশিকা সংগ্রহের ঠিকানা:

http://admit.dpe.gov.bd/Manual.pdf

২০ মে অনুষ্ঠিত ২য় পর্যায়ের প্রাথমিকের নিয়োগ পরীক্ষার এডমিট কার্ড সংগ্রহ করার বিস্তারিত নির্দেশনা পেতে নিচের প্রতিবেদনটি পড়ুন।

প্রাইমারি শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার এডমিট কার্ড ডাউনলোড ২০২২

প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ লিখিত পরীক্ষার সময়সূচি ২০২২

প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষার্থীদের জন্য ২৩ নির্দেশনা

প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষা ২০২০-এর পরীক্ষার্থীদের জন্য নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়েছে। ১০ পৃষ্ঠার এই নির্দেশীকায় পরীক্ষা চলাকালীন সময়ের সকল নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

নির্দেশিকা সংগ্রহের ঠিকানা: http://admit.dpe.gov.bd/Manual.pdf

প্রাথমিক নিয়োগের লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণের আগে, নির্দেশীকায় পরিশিষ্ট-১ এ বর্ণিত নিচের নির্দেশনাগুলো মনোযোগ সহকারে পড়ুন।

প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষার্থীদের জন্য নির্দেশাবলী

১. লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য প্রবেশপত্র এবং জাতীয় পরিচয় পত্র অবশ্যই সঙ্গে আনতে হবে৷

২. পরীক্ষা শুরু হওয়ার ১ এক ঘন্টা পূর্বে প্রার্থীকে নির্ধারিত আসন গ্রহণ করতে হবে এবং পরীক্ষা সমাপ্ত না হওয়া পর্যন্ত কক্ষ ত্যাগ করতে পারবেন না৷

৩. পরীক্ষা শুরুর পর থেকে ওএমআর ফরম জমা না দেয়া পর্যন্ত কাউকে বাইরে যেতে দেয়া হবে না, তাই পরীক্ষার শুরু হওয়ার আগেই সকল প্রয়োজন মিটিয়ে আসতে হবে।

৪. কক্ষ পরিদর্শকের অনুমতি ব্যতীত নিজ আসন ছাড়া অন্য কোন আসনে বসা যাবে না।

৫. প্রবেশপত্র ব্যতিরেকে কোন পরীক্ষার্থীকে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে দেয়া হবে না। পরীক্ষা কেন্দ্রে কোন বই, উত্তরপত্র, নোট বা অন্য কোন কাগজপত্র, ক্যালকুলেটর, মোবাইল ফোন, ভ্যানিটিব্যাগ, পার্স, হাতঘড়ি বা ঘড়ি জাতীয় বস্তু, ইলেকট্রনিক্স হাত ঘড়ি বা যে কোন ধরনের ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস, যোগাযোগ যন্ত্র বা এই জাতীয় বস্তু সঙ্গে নিয়ে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না। যদি কোন পরীক্ষার্থী উল্লিখিত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

৬. পরীক্ষার্থীকে পরীক্ষা কক্ষে অবস্থানকালে অবশ্যই উভয় কান উন্মুক্ত রাখতে হবে।

৭. আবেদনপত্রে পরীক্ষার্থীর প্রদত্ত ছবি হাজিরা শীটে থাকবে এবং ইনভিজিলেটর এই ছবি দিয়ে পরীক্ষার্থীকে যাচাই করবেন । ভুয়া পরীক্ষার্থীর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

৮. আবেদনপত্রে প্রার্থীর দেয়া স্বাক্ষরের সাথে পরীক্ষার হাজিরা সীটে এবং ওএমআর শীটে প্রদত্ত স্বাক্ষরসহ সকল তথ্যে মিল থাকতে হবে।

৯. পরীক্ষার্থীকে উত্তরপত্রে অবশ্যই কালো বল পয়েন্ট কলম ব্যবহার করতে হবে।

১০. একজন পরীক্ষার্থীর জন্য ওএমআর ফরমের সেট কোড পূর্বনির্ধারিত থাকবে, পরীক্ষার্থীর জন্য নির্ধারিত ওএমআর ফরমের সেট কোডটি এ প্রবেশপত্রে উল্লেখ করা আছে।

১১. পরীক্ষার হলে যে ওএমআর ফরমটি দেওয়া হবে, সেখানে সেট কোডের ঘরে প্রবেশপত্রে উল্লিখিত কোডটির বিপরীতে বৃত্ত ভরাট করতে হবে।

১২. ওএমআর ফরম পাওয়ার পর ফরমের ডানদিকে নীচে লেখা নির্দেশাবলী সমূহ খুব ভালোভাবে পড়ে নিতে হবে।

১৩. পরীক্ষায় প্রশ্নপত্রের সেট কোডসমূহ এবং ওএমআর ফরমের সেট কোড ভিন্ন হবে।

পরীক্ষার্থীর ওএমআর সেট কোড এর বিপরীতে কোন সেট কোডের প্রশ্ন পাবেন তা পরীক্ষা শুরু হওয়ার পাঁচ মিনিট আগে কক্ষ পরিদর্শক জানিয়ে দিবেন।

পরীক্ষার্থী সঠিক কোডের প্রশ্নটি পেলেন কিনা তা নিজে নিশ্চিত হবেন।

১৪. প্রবেশপত্রে নির্ধারিত ওএমআর-এর সেট কোড ব্যতীত অন্য সেট কোডে পরীক্ষা দিলে উত্তরপত্রটি বাতিল বলে গণ্য হবে।

১৫. রোল বা সেট কোড এর বৃত্ত পূরণে কোনো ভুল হলে উত্তরপত্রটি বাতিল বলে গণ্য হবে।

১৬. হাজিরা সীটের সঠিক স্থানে পরীক্ষার্থীকে স্বাক্ষর করতে হবে এবং হাজিরা বৃত্তটি পূরণ করতে হবে। তা না হলে উত্তরপত্রটি বাতিল বলে গণ্য হবে৷

১৭. ওএমআর ফরমের উপরিভাগের নির্ধারিত সকল টেক্সটবক্স নির্দেশনা অনুযায়ী পূরণ করতে হবে, অন্যথায় উত্তরপত্রটি বাতিল বলে গণ্য হবে।

১৮- পরীক্ষা কেন্দ্রের ভিতরে আপনার আসন কোন রুমে তার তালিকা টানিয়ে দেয়া হবে। এক পরীক্ষার্থীর জায়গায় অন্য কোন পরীক্ষার্থী পরীক্ষা দিলে তার পরীক্ষা বাতিল হবে।

১৯. পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে কারো সাথে যোগাযোগ করা যাবে না, কারো সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে কিংবা কোন অসদুপায় অবলম্বন করা হলে পরীক্ষা থেকে বহিষ্কার করা হবে।

২০. পরীক্ষা আগে, চলাকালীন কিংবা পরে পরীক্ষার্থী কক্ষ পরিদর্শকের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করলে বা কোন অন্যায় আচরণ করলে ও তা প্রমাণিত হলে তার পরীক্ষা বাতিল হবে।

২১. পরীক্ষা হলে কক্ষ পরিদর্শকের নির্দেশ মেনে চলতে হবে৷

২২. পরীক্ষা শেষে কক্ষ পরিদর্শক লেখা বন্ধ করতে বলার সঙ্গে সঙ্গে লেখা বন্ধ করতে হবে।

২৩. কক্ষ পরিদর্শক কর্তৃক ওএমআর ফরম ও প্রশ্ন পত্র জমা নেয়ার পর উনারা তা গুনে সব ঠিক পাওয়া পর্যন্ত পরীক্ষার্থীদের যার যার আসনে বসে থাকতে বলবেন। তারা যেতে না বলা পর্যন্ত কেউ কক্ষ ত্যাগ করবে না।

প্রাথমিকের নিয়োগ পরীক্ষা ২০২২ এর ২৩ নির্দেশনা বুঝতে ও এডমিট কার্ড সংগ্রহ করতে অসুবিধা হলে আমাদের লিখে জানান।

তথ্যটি সবাইকে জানাতে সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করুন।

আরো দেখুন:

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষার রেজাল্ট ২০২২ (১ম ধাপ)

প্রাথমিক নিয়োগের মৌখিক পরীক্ষা সংক্রান্ত জরুরী বিজ্ঞপ্তি ২০২২

Primary Teacher News Update | DPE Notice Office Order Gazette

Primary and Mass Education Ministry Notice | mopme.gov.bd

তথ্যসূত্র:

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর

Share This:

2 Comments

  1. ভাই আরিয়ান কোটা বাতিল করা হবে না মুক্তিযুদ্ধা ও প্রতিবন্ধী এবং এতিম যারা তারা ৩২বছর পর্যন্ত আবেদন করতে পারবেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।