প্রাথমিক বিদ্যালয় ২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ, চলবে অনলাইন ক্লাস

প্রাথমিক বিদ্যালয় ২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর স্কুল বন্ধের সময়ে শিক্ষকদের অনলাইনে ক্লাস নিতে নির্দেশ দিয়েছে।

প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ, শিক্ষকদের অনলাইনে ক্লাস নিতে প্রাথমিক অধিদপ্তরের নির্দেশ

দেশের সকল সরকারি-বেসরকারি  প্রাথমিক বিদ্যালয় ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২২ খ্রি. তারিখ পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। এসময় শিক্ষকদের অনলাইনে ক্রাস নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে অধিদপ্তর।

মন্ত্রীপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা ৩ ফেব্রুয়ারির প্রজ্ঞাপনে, দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর বিদ্যালয় বন্ধের সময়, বিদ্যালয়ের সামগ্রিক শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার ৮টি নির্দেশনা দিয়েছে।

অধিদপ্তরের পরিচালক মনীষ চাকমা স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে, শিক্ষকদের অনলাইনে ক্লাস নেওয়ার নির্দেশনা সম্পর্কে জানা গেছে।

২৭ জানুয়ারি ২০২২ খ্রি. তারিখে অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে, কোভিড-১৯ রোধকল্পে বিদ্যালয়ের সামগ্রিক কার্যক্রম পরিচালনার নির্দেশনা প্রকাশ করা হয়।

আরো জানুন:

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছুটির তালিকা ২০২২ (সরকারি-বেসরকারি)

Primary Teacher News Update | DPE Notice Office Order Gazette

কোভিড-১৯ জনিত কারণে বিদ্যালয়ের বন্ধে, অধিদপ্তরের নির্দেশনায় যা বলা হয়েছে

প্রাথমিক শিক্ষকদের যেসব নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সরাসরি অংশগ্রহণে শ্রেণি কার্যক্রম বন্ধ থাকবে।

কোভিড-১৯ পরিস্থিতির কারণে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় অনুমোদিত বার্ষিক পাঠ পরিকল্পনা অনুযায়ী সংশ্লিষ্ট বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা অনলাইনে গুগল মিটে পাঠদান কার্যক্রম পরিচালনা করবেন।

মোবাইল ফোন ও ব্যক্তিগতভাবে যোগাযোগের মাধ্যমে সংসদ বাংলাদেশ টেলিভিশন, বাংলাদেশ বেতার ও কমিউনিটি রেডিও থেকে পরিচালিত ‘ঘরে বসে শিখি’ পাঠ কার্যক্রমে অংশগ্রহণের জন্য শিক্ষার্থীদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে।

অনলাইন ক্লাসের সময়সূচি নির্ধারণের ক্ষেত্রে বিশেষ নির্দেশনা দিয়েছে অধিদপ্তর। সংসদ বাংলাদেশ টেলিভিশন এবং বাংলাদেশ বেতার ও কমিউনিটি রেডিও’র মাধ্যমে চলমান ‘ঘরে বসে শিখি’ পাঠ সম্প্রচারের সময় বাদ দিয়ে অনলাইন পাঠদানের সময়সূচি নির্ধারণ করার কথা বলা হয়েছে

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সরাসরি পাঠদান কার্যক্রম বন্ধকালীন প্রতিষ্ঠানের সব সম্পদ রক্ষণাবেক্ষণ ও সামগ্রিক নিরাপত্তার বিষয়ে প্রধান শিক্ষক এসএমসির সদস্যদের সহযোগিতা নেবেন।

বিদ্যালয় নিয়মিত পরিষ্কার-পরিছন্ন কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে হবে।

প্রধান শিক্ষক বিদ্যালয়ের ক্যাচমেন্ট এরিয়ার সব শিক্ষার্থীকে শ্রেণি শিক্ষক ও বিষয় শিক্ষক প্রতি ভাগ করে দেবেন বা নেবেন।

শিক্ষকরা সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মোবাইল ফোনে ও ব্যক্তিগতভাবে নিয়মিত যোগাযোগ রক্ষা করে শিক্ষার্থীদের পাঠ অগ্রগতির খোঁজখবর নেবেন।

শিক্ষকরা সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মোবাইল ফোনে ও ব্যক্তিগতভাবে নিয়মিত যোগাযোগ রক্ষা করে শিক্ষার্থীদের পাঠ অগ্রগতির খোঁজখবর নেবেন।

শিক্ষকরা সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মোবাইল ফোনে ও ব্যক্তিগতভাবে নিয়মিত যোগাযোগ রক্ষা করে শিক্ষার্থীদের পাঠ অগ্রগতির খোঁজখবর নেবেন।

এবিষয়ে বিস্তারিত জানুন নিচের বিজ্ঞপ্তি থেকে

প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধে প্রাথমিক অধিদপ্তরের নির্দেশনা

কোভিড-১৯ সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে সরকার ঘোষিত সব স্বাস্থ্যবিধি ও অন্য বিধিনিষেধ যথাযথভাবে অনুসরণ করে, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত এসব নির্দেশনা মেনে চলতে বলেছে অধিদপ্তর।

আরো দেখুন:

স্কুল কলেজ বন্ধের নোটিশ: দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা

NAPE DPEd Board Notice | নেপ ডিপিএড বোর্ড রেজাল্ট দেখুন

Primary and Mass Education Ministry Notice | mopme.gov.bd

তথ্যসূত্র-

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর

সবশেষ আপডেট: ০৩/০২/২০২২ খ্রি. তারিখ ০৭:১৮ অপরাহ্ন।

Share This:

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।